1. arif.arman@gmail.com : Daily Coxsbazar : Daily Coxsbazar
  2. dailycoxsbazar@gmail.com : ডেইলি কক্সবাজার :
  3. litonsaikat@gmail.com : ডেইলি কক্সবাজার :
  4. shakil.cox@gmail.com : ডেইলি কক্সবাজার :
  5. info@dailycoxsbazar.com : ডেইলি কক্সবাজার : Daily ডেইলি কক্সবাজার
সমুদ্রপৃষ্ঠের উচ্চতা বাড়ার হার ২৮০০ বছরের মধ্যে সর্বোচ্চ - Daily Cox's Bazar News
মঙ্গলবার, ০৭ ফেব্রুয়ারী ২০২৩, ০৫:০০ পূর্বাহ্ন
নোটিশ ::
ডেইলি কক্সবাজারে আপনার স্বাগতম। প্রতি মূহুর্তের খবর পেতে আমাদের সাথে থাকুন।
সংবাদ শিরোনাম ::
কট্টরপন্থী ইসলামী দল হেফাজতে ইসলাম বাংলাদেশের জন্য চ্যালেঞ্জ: এসএডিএফ কক্সবাজারের আট তরুণ তরুণীকে ‘অদম্য তারূণ্য’ সম্মাননা জানাবে ঢাকাস্থ কক্সবাজার সমিতি Job opportunity বিশ্বের সবচেয়ে বড় আয়না, নাকি স্বপ্নের দেশ! আল-আকসা মসজিদে ইহুদিদের প্রার্থনা বন্ধের আহ্বান আরব লীগের পেকুয়ায় পুলিশের অভিযানে ৮০ হাজার টাকার জাল নোটসহ গ্রেফতার-১ পেকুয়ায় অস্ত্র নিয়ে ফেসবুকে ভাইরাল : অস্ত্রসহ আটক শীর্ষ সন্ত্রাসী লিটন টেকনাফে একটি পোপা মাছের দাম হাঁকাচ্ছেন সাড়ে ৭ লাখ টাকা ! কক্সবাজারের টেকনাফে র‍্যাবের অভিযানে ইয়াবাসহ আটক-১ নিউ ইয়র্কে মেয়র কার্যালয়ে শহীদ মিনার নির্মাণ নিয়ে কনসাল জেনারেলের আলোচনা

সমুদ্রপৃষ্ঠের উচ্চতা বাড়ার হার ২৮০০ বছরের মধ্যে সর্বোচ্চ

ডেইলি কক্সবাজার ডেস্ক ::
  • আপডেট সময় মঙ্গলবার, ২৩ ফেব্রুয়ারী, ২০১৬
  • ২১৫ বার পড়া হয়েছে

aa3a6b8302609fe269253cd4d7eee9ad-নতুন এক গবেষণায় বিজ্ঞানীরা দাবি করেছেন, গত ২৮টি শতকের মধ্যে সমুদ্রের পানির উচ্চতা সবচেয়ে বেশি দ্রুত গতিতে বাড়ছে। এরমধ্যে পানির উচ্চতা বৃদ্ধির হার সবচেয়ে বেশি বেড়েছে গত শতকে। আর এর কারণ হিসেবে বৈশ্বিক উষ্ণতাকে দায়ী করা হয়েছে। আগামী কয়েক দশক ধরে কার্বন নির্গমনের বর্তমান হার অব্যাহত থাকলে ২১শ সাল নাগাদ সমুদ্রের পানির উচ্চতা তিন থেকে চার ফুট বেড়ে যাবে বলেও আশঙ্কা প্রকাশ করা হয়েছে।  নতুন এ গবেষণা প্রতিবেদন এবং বিজ্ঞানীদের আশঙ্কা নিয়ে শিরোনাম করেছে নিউ ইয়র্ক টাইমস।
গবেষকদের মতে, বৈশ্বিক উষ্ণতা বাড়ার পেছনে গ্রিনহাউজ গ্যাস নির্গমন, জীবাশ্ম জ্বালানি পোড়ানোর মতো অনেক মানবসৃষ্ট কারণ দায়ী। আর এ বৈশ্বিক উষ্ণতার কারণে সমুদ্রের পানির স্তর যে হারে বাড়ছে তা প্রাচীন রোম প্রতিষ্ঠার পর থেকে সর্বোচ্চ।
গবেষকদের দাবি, মানবসৃষ্ট কারণে যদি কার্বন নির্গমন না হতো তবে সমুদ্রের পানির উচ্চতা বাড়ার হার কম থাকতো এমনকি নিম্নমুখীও হতে পারতো। প্রতিবেদনে বলা হয়, যুক্তরাষ্ট্রের উপকূলীয় এলাকায় জলোচ্ছ্বাস এবং বন্যার জন্য মানবসৃষ্ট গ্রিনহাউজ গ্যাস দায়ী।

বিজ্ঞানীদের আশঙ্কা, সমুদ্রের পানির উচ্চতা বাড়ার কারণে দ্বাবিংশ শতাব্দীতে পরিস্থিতি আরও ভয়াবহ রূপ ধারণ করতে পারে। বিভিন্ন উপকূলীয় এলাকা থেকে জনবসতি সরিয়ে নেওয়ার প্রয়োজন পড়তে পারে বলেও সতর্ক করেছেন তারা।

প্রতিবেদনে বলা হয়, পৃথিবীর তাপমাত্রার রদবদলের সঙ্গে সমুদ্রপৃষ্ঠের উচ্চতারও রদবদল হয়। গবেষকদের দাবি, ১৯ শতকে শিল্প বিপ্লবের সময় থেকে সমুদ্রপৃষ্ঠের উচ্চতা বিপজ্জনকহারে বাড়তে থাকে। ১৮৮০ সাল থেকে সমুদ্রপৃষ্ঠের উচ্চতা প্রায় ৮ ইঞ্চি বেড়েছে। আর মানবসৃষ্ট নির্গমনের কারণে ১৯ শতক থেকে বৈশ্বিক উষ্ণতা ১.৮ ডিগ্রি ফারেনহাইট বেড়েছে।

বিজ্ঞানীদের মতে, জলবায়ু পরিবর্তন মোকাবিলায় সম্প্রতি প্যারিস সম্মেলনে যে সমঝোতা হয়েছে তা কার্যকর হলে গ্রিনল্যান্ড এবং অ্যান্টার্কটিকার বরফ গলার হার কমতে পারে।

শেয়ার করুন

Leave a Reply

এ জাতীয় আরো খবর
© All rights reserved © 2020 Dailycoxsbazar
Theme Customized BY Media Text Communications