সংবাদ শিরোনাম

নাশকতার মামলার আসামির নামে সড়ক নামকরণের ঘোষণা দিলেন এমপি কমল

সদ্য প্রয়াত কক্সবাজার জেলা জামায়াতের সেক্রেটারি ও কক্সবাজার সদর উপজেলা পরিষদের চেয়ারম্যামন জিএম রহিমুল্লাহ’র নামে একটি সড়কের নামকরণ ও তার পরিবারকে একটি জায়গা দেয়ার ঘোষণা দিয়েছেন কক্সবাজার-৩ আসনের সরকার দলীয় সংসদ সদস্য সাইমুম সরওয়ার কমল।

বুধবার (২১ নভেম্বর) সকাল সাড়ে ১০ টার দিকে জেলার শহরের ঈদগাহ মাঠে জিএম রহিমুল্লাহ’র জানাযার নামাজের পূর্বে সংক্ষিপ্ত বক্তব্যের এক পর্যায়ে তিনি এ ঘোষণা দেন।

এসময় কমল বলেন, জিএম রহিমুল্লাহ উপজেলা চেয়ারম্যান হওয়ার পরও কোনদিন কোন বিষয়ে কোনদিন দ্বিমত হয়নি। সমন্বয় করে কাজ করতাম। বিশ্ববিদ্যালয় জীবন থেকেই আমি রহিমুল্লাহ ভাইকে চিনতাম। দুই জন দুই রাজনৈতিক মতাদর্শের হলেও তিনি আমার সিনিয়র ছিলেন। বিশ্ববিদ্যালয়ে সবসময় ডেকে চা খাবো কিনা জানতে চাইতেন।

তিনি বলেন, তার মত একজন মানুষ ভাড়া বাসায় থাকতেন। ঠিকমত বাসা ভাড়া দিতে পারতেন না। এই জানাযার মাঠে আমি বললাম, তার পরিবারকে আমি একটি জায়গার ব্যবস্থা করে দেবো। তার নামে একটি সড়ক দেব।

এদিকে সাংসদ কমলের এ ধরনের বক্তব্যে স্থানীয় আওয়ামী লীগের নেতাকর্মীদের মাঝে ব্যাপক সমালোচনা শুরু হয়েছে। অনেক সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে বিষয়টি নিয়ে নিজেদের অসন্তুষ্টির কথা জানিয়েছেন।

কক্সবাজার জেলা আওয়ামী লীগের সাবেক আইন বিষয়ক সম্পাদক এড: ফরিদুল আলম বলেন, ব্যক্তি কমল যে কাউকে সহযোগিতা করতে পারেন। তবে কোন সড়ক নাম করণে ক্ষমতা তিনি রাখেন না। তার ঘোষণাটি নির্বাচনকে সামনে রেখে রাজনৈতিক স্ট্যান্ড।

কক্সবাজার পৌর আওয়ামী লীগের ভারপ্রাপ্ত সভাপতি নজিবুল ইসলাম বলেন, মুসলমান হিসেবে যে কারো জনাজায় যাওয়া সবার অধিকার। কিন্তু আওয়ামী লীগের একজন সাংসদ হিসেবে এ ঘোষণা রাজনৈতিক দেওলিয়াপনা ছাড়া আর কিছুই নয়। মূলত তিনি সস্তা জনপ্রিয়তার জন্য এ ঘোষণা দিয়েছেন।

কক্সবাজার সদর থানার ওসি ফরিদ উদ্দিন খন্দকার বলেন, ২০১৩ সালে দু দফা  জি.এম রহিমউল্লাহ দেলোয়ার হোসাইন সাঈদী মুক্তির আন্দোলনের নামে কক্সবাজার সদর ও ঈদগাওতে নাশকতা চালায় । ওই ঘটনায় ৪ জন লোক নিহত হয় । আহত হয় অর্ধশাধিক। এ ব্যাপারে পুলিশ বাদী হয়ে ৪ টি হত্যা ও নাশকতা মামলা দায়ের করে । ওই মামলায় তিনি পলাতক আসামি ছিলেন।

এ ব্যাপারে কথা বলতে কক্সবাজার জেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি অ্যাড. সিরাজুল মোস্তফা এবং সাধারণ সম্পাদক মুজিবুর রহমানের সাথে কয়েক দফা যোগাযোগের চেষ্টা করা হয়। কিন্তু তাদের সাথে কথা বলা সম্ভব হয়নি।

প্রসঙ্গত, কক্সবাজার সদর উপর উপজেলা চেয়ারম্যান ও জেলা জামায়াতের সেক্রেটারি জিএম রহিম উল্লাহ গত মঙ্গলবার কক্সবাজার শহরের আবাসিক হোটেল সাগরগাঁওতে মারা যান। স্বজনরা বলছেন, হৃদরোগে আক্রান্ত হয়ে তার মৃত্যু হয়েছে।

Editor in Chief : Sayed Shakil
Office: Evan plaza, sador model thana road, cox’sbazar-4700. Email: dailycoxsbazar@gmail.com / phone: 01819099070
অনুমতি ছাড়া অথবা তথ্যসূত্র উল্লেখ না করে এই ওয়েব সাইট-এর কোন অংশ, লেখা বা ছবি নকল করা বা অন্য কোথাও প্রকাশ করা বেআইনী