সংবাদ শিরোনাম

ব্যবসায়ীদের সদাচারী হতে বললেন পুলিশ

কক্সবাজারের ব্যবসায়ীদের সদাচারী হতে বললেন পুলিশ সুপার এবিএম মাসুদ হোসেন। তিনি বলেন, কক্সবাজার একটি পর্যটন নগরী হিসেবে দেশবিদেশের অসংখ্য পর্যটক বেড়াতে আসেন। এখানকার অধিবাসীদের আচার ব্যবহারের ওপর কক্সবাজারের সুনাম বাড়বে। ব্যবসার প্রসার ঘটবে।

ব্যবসায়ীদের উদ্দেশ্যে কক্সবাজার সদর মডেল থানার ওসি মোঃ ফরিদ উদ্দিন খন্দকার বলেছেন, কক্সবাজার শহরকে সন্ত্রাস, ছিনতাই, মাদকমুক্ত করা হবে। ইয়াবা ব্যবসায়ীসহ সব অপরাধীদের তথ্য দিন। কক্সবাজার শহরে কোন মাদক ব্যবসায়ীর ঠাঁই হবেনা। ব্যবসার আড়ালে যাতে কেউ অপরাধে না জড়ায়, মাদক ব্যবসা না করে।
কক্সবাজার পৌরসভার বৃহত্তর বার্মিজ মার্কেট ব্যবসায়ী কল্যাণ সমিতির বার্ষিক সম্মেলন পুলিশ সুপার এবিএম মাসুদ প্রধান অতিথির বক্তব্য রাখেন।
শুধু ব্যবসায়ী হিসেবে নয়, মানুষ হিসেবেও সর্বোত্তম আচরণ চাই। সবার মনমানসিকতার পরিবর্তন করা দরকার।
মঙ্গলবার (১৫ জানুয়ারি) দুপুরে কক্সবাজার শহরের বার্মিজ মার্কেটস্থ কাদের শপিং সেন্টারে অনুষ্ঠিত সম্মেলনে সভাপতিত্ব করেন কক্সবাজার দোকান মালিক সমিতি ফেডারেশনের সাবেক সভাপতি আলহাজ্ব ফরিদ আহমদ চৌধুরী।
সম্মেলনে পুলিশ সুপার এবিএম মাসুদ হোসেন বলেন, পর্যটকেরা শুধু বিনোদনের জন্য কক্সবাজারে বেড়াতে আসেনা। কিছু কেনাকাটাও করে। সেটি নির্ভর করবে আপনাদের ওপর।
তিনি বলেন, কক্সবাজারে কোন মাস্তানী হবেনা। মাদকের বিরুদ্ধে আমরা কঠোর ও আপোষহীন। কারো বিরুদ্ধে অভিযোগ পেলে কঠিন ব্যবস্থা নেয়া হবে।
পুলিশের শীর্ষ পর্যায়ের এই কর্মকর্তা আরো বলেন, পুলিশের কোন সদস্যও অপরাধ করলে তথ্য দিবেন। অপরাধে জড়ালে পার পাবেনা। এসময় তিনি ব্যবসায়ীদের সবধরনের সহযোগিতার আশ্বাস দেন।
ব্যবসায়ীদের এ সম্মেলনে বিশেষ অতিথি ছিলেন সহকারী পুলিশ সুপার সাইফুল ইসলাম, মোঃ রিয়াদ, সহকারী পুলিশ সুপার (ট্রাফিক) বাবুল চন্দ্র বনিক, কক্সবাজার সদর মডেল থানার ওসি মোঃ ফরিদ উদ্দিন খন্দকার, কক্সবাজার প্রেসক্লাবের সভাপতি মাহবুবর রহমান, কক্সবাজার দোকান মালিক সমিতি ফেডারেশনের সভাপতি আলহাজ্ব মোস্তাক আহমদ চৌধুরী, কক্সবাজার পৌরসভার ৮ নং ওয়ার্ডের কাউন্সিলর রাজ বিহারী দাশ, ৪ নং ওয়ার্ডের কাউন্সিলর দিদারুল ইসলাম রুবেল, কাদের শপিং সেন্টারের সত্ত্বাধিকারী মামুনুর রহমান, মাওলানা ক্বাজি মুজিবুর রহমান বেলাল, ইসলাম শপিং সেন্টারের সত্ত্বাধিকারী সাংবাদিক মোঃ শহিদুল ইসলাম শহীদ। সভা আয়োজক কমিটির পক্ষে প্রতিবেদন পেশ করেন বিশিষ্ট ব্যবসায়ী মুছা কলিম উল্লাহ।
ব্যবসায়ী নেতা সাহাব উদ্দিনের সঞ্চালনায় সভায় বক্তব্য রাখেন ব্যবসায়ী নেতা মোহাম্মদ শাহ আলম, নুরুল আনোয়ার চৌধুরী মিন্টু, বৃহত্তর বার্মিজ মার্কেটের ব্যবসায়ী মহিউদ্দিন খোকন, কক্সবাজার পাইকারি ব্যবসায়ী সমিতির সভাপতি বাবু মহারাজ নাথ, ব্যবসায়ী নেতা মিজানুর রহমান, রুবেল প্রমুখ।
সম্মেলনে ব্যবসায়ীরা বলেন, বার্মিজ মার্কেট এলাকায় অধিকাংশ সময় যানজটের কারণে খালি পায়ে হাঁটাচলাও দায় পড়ে। ময়লা আবর্জনার কারণে ড্রেনসমূহ ভরে যায়। বর্ষা মৌসুমে করুণ আকার ধারণ করে। ড্রেনের পানি সড়ক দিয়ে চলাচল করে। প্রশাসন ও ব্যবসায়ীদের সমন্বয়ে এ অবস্থার উত্তরন হতে হবে।
তারা বলেন, বিশ্ববিখ্যাত এই শহরের অর্থনীতিতে, পর্যটনশিল্পে বার্মিজ মার্কেটের ব্যবসায়ীদের গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা রয়েছে। আমরা সুন্দর, পরিচ্ছন্ন ও ট্রাফিকজ্যামমুক্ত শহর চাই। সন্ত্রাস, চাঁদাবাজমুক্ত ব্যবসাবান্ধব পরিবেশ চাই। আমাদের মার্কেটগুলোর সামনের সড়কের সুন্দর ব্যবস্থাপনা আমাদের ব্যবসাকে বহুদূর এগিয়ে নেবে। সম্মেলনে ১১ সদস্য বিশিষ্ট একটি উপদেষ্টা পরিষদ ও ৩৬ সদস্যের একটি কার্যকরী পরিষদ গঠিত হয়েছে। কার্যকরী কমিটিতে আলহাজ্ব ফরিদ আহমদ চৌধুরী সভাপতি ও মুছা কলিম উল্লাহকে কার্যকরী সভাপতি করা হয়েছে।

Editor in Chief : Sayed Shakil
Office: Evan plaza, sador model thana road, cox’sbazar-4700. Email: dailycoxsbazar@gmail.com / phone: 01819099070
অনুমতি ছাড়া অথবা তথ্যসূত্র উল্লেখ না করে এই ওয়েব সাইট-এর কোন অংশ, লেখা বা ছবি নকল করা বা অন্য কোথাও প্রকাশ করা বেআইনী